অর্থ ও বাণিজ্য ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০৪:৩২

বুকের দুধ বিক্রি করে ৭ মাসেই কোটিপতি যে নারী

ডেস্ক রিপোর্ট।। 

শিশুর জন্য মায়ের দুধের বিকল্প নেই। তেমনই বয়স্কদের জন্য এই দুধ পরিত্যাজ্য। কিন্তু হলে কি হবে! পশ্চিমের শরীরচর্চায় জড়িতদের মধ্যে বিশ্বাস, নারীর বুকের দুধে রয়েছে এমন সব পুষ্টি উপাদান যা অন্য কোনো প্রাণীর মধ্যে নেই। আর সেই বিশ্বাসকে পুঁজি করেই সাইপ্রাসের এক নারী সম্পদের পাহাড় গড়েছেন।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম ইন্ডিপেনডেন্ট সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে জানায়, রাফায়েলা ল্যাম্পরুউ নামের ২৪ বছর বয়সী সাইপ্রাসের ওই নারী মাত্র ৭ মাসেই বুকের দুধ বিক্রি করে কোটিপতি হয়ে গেছেন। যা কিনেছে বডি বিল্ডারেরা।

প্রতিবেদনে বলা হয়, রাফায়েলা ল্যাম্পরুউ গত ৭ মাস আগে এক পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। সন্তান হওয়ার পর নিয়মিত বুকের দুধ পান করাচ্ছিলেন তিনি। তবে এটাও লক্ষ্য করেন যে, সন্তানকে খাওয়ানোর পরও দুধ যথেষ্ট নষ্ট হচ্ছে। তাই ঠিক করেন বাড়তি দুধ তিনি বিক্রি করবেন।

প্রথমে তিনি অসমর্থ মায়েদের দুধ দান করতেন

প্রথমে তিনি এই বিষয়ে ব্যবসা করার কথা ভাবেননি, তিনি সেই সমস্ত মায়েদের দুধ দান করতেন যারা তাদের বাচ্চাদের দুধ খাওয়াতে অসমর্থ ছিল। এরপর কিছু ব্যক্তি তার সাথে দেখা করেন দুধ সাপ্লাই দেওয়ার কথা বলে আর রাফায়েলা তাতে রাজি হয়ে যান।

দুধের চাহিদা দেখার পরই তিনি ব্যবসা শুরু করেন, প্রতি লিটার দুধের দাম নেন ১ ইউরো

রাফায়েলা তার দুধের চাহিদা দেখে এবং ক্রেতার পরিমাণ বেড়ে যাওয়াতে দুধ বিক্রি শুরু করে দেন ই-কমার্স সাইটে। অর্থাৎ তিনি অনলাইনে দুধের অর্ডার নেওয়া এবং বিক্রি শুরু করেন। আর এই দুধের মূল্য ধারণ করেন লিটার প্রতি ১ ইউরো, ভারতীয় মুদ্রায় যা প্রায় ৮০ টাকার বেশি।

বডি বিল্ডাররাও নিয়মিত পান করে তার দুধ

দুধ বিক্রি করতে গিয়ে রাফায়েলার হয় অন্য অভিজ্ঞতা। দেখলেন, শিশুর মায়েদের চাইতে ব্যায়াম বীরদের দুধের প্রতি বেশি আগ্রহ। শুরুতে পর পর কয়েকজন বডি বিল্ডার তার কাছে বুকের দুধ কেনার জন্য যান।

তারাই জানান, পেশী শক্তি বাড়ানোর জন্য বুকের দুধের কার্যকারিতা নাকি সবচেয়ে বেশি। সেই কারণেই নানা রকম রাসায়নিক সম্পূরক খাদ্যের চাইতে বুকের দুধ তাদের বেশি পছন্দ।

দুধ সাপ্লাই করার জন্য তাকে নিয়মিত চেক আপ করাতে হয়

দুধের পুষ্টিগুণ সবসময় বজায় রাখতে এবং ক্রেতাদের সুরক্ষিত দুধ দেওয়ার জন্য তাকে নিয়মিত শরীরের চেক আপ করাতে হয় আর এটাও দেখা হয় যে রাফায়েলা ধূমপান বা মদ্যপান করছেন কিনা।

৫০০ লিটারের বেশি দুধ বিক্রি করে ফেলেছেন ইতিমধ্যেই

আপনি জানলে অবাক হবেন যে রাফায়েলা ইতিমধ্যেই ৫০০ লিটারের বেশি দুধ বিক্রি করে ফেলেছে, যার মূল্য প্রায় ৪৫০০ পাউন্ডের মতো অর্থাৎ ভারতীয় মূদ্রায় যা প্রায় ৪ লাখ টাকার বেশি।

তার স্বামীর কোনো আপত্তি নেই এই ব্যাপারে

রাফায়েলার সাথে থাকেন তার ৩৩ বছর বয়সী স্বামী আলেক্স এবং তাদের দুই সন্তান। সে জানায় তার স্বামী বরাবরই তাকে এই কাজে সাপোর্ট করে এসেছে।

প্রথমে ফেসবুকে গ্রুপ বানিয়ে রাফায়েলা সেখানে দুধ বিক্রি শুরু করেন। পরে তার দুধের ক্রমবর্ধমান চাহিদা দেখে সে নিজেই একটা ওয়েবসাইট বানিয়ে ফেলে দুধ বিক্রির জন্য।
রাফায়েলা জানায় যে, এর ফলে অনেক পুরুষদের সুবিধা হয় নির্দ্বিধায় দুধ অর্ডার করার। তিনি আরও বলেন যে, বিভিন্ন সময়ে নানারকম লোক এ বিষয়ে খারাপ মন্তব্য করে থাকে। তবে তিনি তা এড়িয়ে যান।